শুধু ডার্বি নয় সব ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ স্টিফেনের কাছে

স্পোর্টস ডেস্ক, এনএফবিঃ

আগামী শনিবার আইএসএলের কলকাতা ডার্বিতে নামবে ইস্টবেঙ্গল। ঘরের মাঠে নামলেও এই ডার্বির আয়োজক এটিকে মোহনবাগান। গত ডুরান্ড কাপ ডার্বিতে আবার সুমিত পাসির আত্মঘাতী গোলে হার মেনেছে লাল হলুদ ব্রিগেড। তবে ডার্বির আগে দল ছন্দ ফিরে পেয়েছে। এ দিন অনুশীলনের পরে লাল হলুদের হেড কোচ স্টিফেন কনস্টানটাইন জানালেন, নর্থইস্ট ম্যাচের আগে আমরা এক সপ্তাহ ধরে বেশ কঠোর অনুশীলন করেছিলাম। খেলোয়াড়দের সাথে কোচেরাও প্রচুর পরিশ্রম করছে। একটি দলে ম্যাচ ও অনুশীলন ছাড়াও অনেক গুরুত্বপূর্ণ কাজ থাকে। মরশুমের প্রথম জয় পেয়ে আমি বেশ খুশি। আশা করি আগামী কয়েক সপ্তাহে আমরা আরও উন্নতি করব।আর হাফ-টাইমের বিরতিটা কীভাবে ব্যবহার করতে হবে, সে বিষয়ে আমাদের কিছু পরিকল্পনা রয়েছে। খুব বেশি সময় পাওয়া যায় না ঠিকই। আমরা খেলোয়াড়দের বলেছিলাম প্রথমার্ধের দাপটটা যেন দ্বিতীয়ার্ধেও বজায় থাকে।

আর ওই ম্যাচে আমাদের প্রতিপক্ষ দু’খানা ভালো সুযোগ তৈরী করেছিল, কিন্তু আমরা ওদের গোল করতে দিইনি।

দ্বিতীয়ার্ধে আমরা খুব ভালো শুরু করি এবং কিরিয়াকু অনবদ্য একটি গোল করে আমাদের ২-০ এগিয়ে দেয়। ঐ গোলটি হওয়ার সাথে সাথে এটা পরিষ্কার হয়ে যায় যে আমরা ৩ পয়েন্টের জন্য খেলছি।’

ডার্বি নিয়ে চাপে থাকলেও হাবেভাবে সেটা বুঝতে দিচ্ছেন না স্টিফেন। তার কথায়, “আমার কাছে সব ম্যাচই সমান গুরুত্বপূর্ণ। তবে এটা বলাই বাহুল্য যে, বড় ম্যাচের আলাদা মাহাত্ম্য আছে। আমরা একটা জয় ও অনেকটা আত্মবিশ্বাস নিয়ে এই ম্যাচে নামব। চলতি মরশুমে এটা আমাদের চতুর্থ ম্যাচ হতে চলেছে। ক্রমশঃ আমরা উন্নতি করছি, এবং খেলোয়াড়রা নিজেদের ও একে ওপরের ভূমিকা সম্পর্কে এখন আগের চেয়ে বেশি ওয়াকিবহাল। আমরা ডার্বি খেলার জন্য মুখিয়ে আছি। আশা করি শনিবার আমরা ৩ পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়ব।”

এই ইস্টবেঙ্গল দলের অনেকের আবার এই দলের ডার্বিতে নামার অভিজ্ঞতা এই প্রথমবার। ইস্টবেঙ্গলের সাহেব কোচ জানালেন,
এই জিনিসগুলো আমাদের নিয়ন্ত্রণের বাইরে। ওদের ডার্বি খেলার অভিজ্ঞতা না থাকলে ওরা ২৯ তারিখ সেই অভিজ্ঞতা অর্জন করবে।
বড় ম্যাচে গ্যালারি ভর্তি দর্শক আসবে কারণ আমরা জানি এখানে এই ম্যাচ নিয়ে কতখানি উদ্দীপনা থাকে।
আবার বলি, কিছু খেলোয়াড়ের ডার্বি না খেলার বিষয়টি আমার নিয়ন্ত্রণের বাইরে। যাদের সুযোগ প্রাপ্য তারা ঠিক সেদিন সুযোগ পাবে। আশা করি ওরা ওদের সেরাটা দেবে এবং আমরা আমাদের লক্ষ্যে পৌঁছতে পারব।”

ডুরান্ড কাপের ডার্বিতে মোহনবাগানের বিরুদ্ধে ভাল খেলেও সুমিত পাশির আত্মঘাতী গোলে জয় পেয়েছিল এটিকে মোহনবাগান। তবে সেই ইস্টবেঙ্গল এবং এই মুহূর্তের ইস্টবেঙ্গলের মধ্যে বেশ কিছু পার্থক্য রয়েছে। আইএসএলে গত ম্যাচে নর্থ ইস্ট ইউনাইটেড এফসিকে ৩-১ গোলে হারিয়ে চনমনে ইস্টবেঙ্গলের ফুটবলাররা। শুধু চিন্তা ছিল এলিয়ান্দ্রোকে নিয়েই। চোটের কারণে তাঁকে গুয়াহাটিতে নিয়ে যাওয়া হয়নি। কিন্তু গত সোমবার পুরোদমেই অনুশীলন করছেন ব্রাজিলীয় তারকা। চোট সারিয়ে সুস্থ হয়ে ওঠা আর এক ব্রাজিলীয় অ্যালেক্স লিমাও সুস্থ । ডার্বিতে তাঁকে প্রথম একাদশে রেখেই দল গড়ার সম্ভাবনা প্রবল। দেখা যেতে পারে অনিকেত যাদবকেও। রবিবার থেকে তিনি এবং জেসিন টিকে মূল দলের সঙ্গে অনুশীলন করছেন।

নিউজ ফ্রন্ট বাংলার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন টি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।