শীতলকুচি থেকে ভুয়ো চিকিৎসক গ্রেফতার

এনএফবি,কোচবিহারঃ

শীতলকুচি থেকে গ্রেফতার করা হল এক ভুয়ো চিকিৎসক কে । ঘটনাটি ঘটেছে শীতলকুচির গোঁসাইরহাট এলাকায়। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। ধৃত ওই চিকিৎসকের নাম অনিতেশ বল, তার বাড়ি উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলায়।

জানা গেছে ,বিভিন্ন রোগের একশো শতাংশ চিকিৎসার গ্যারান্টি দিয়ে গ্রামে-গঞ্জে প্রচার চালিয়ে রীতিমত চেম্বার খুলে চিকিৎসা করতে বসেছিলেন ওই চিকিৎসক। মাত্র একশো টাকা ভিজিটের বিনিময়ে রোগী দেখতেন তিনি। এরপরে বিভিন্ন এলাকা থেকে তার চেম্বারে ভিড় করেন রোগীরা। বিভিন্ন জটিল রোগের প্রেসক্রিপশন করতেন তিনি ৷ কিন্তু তার প্রেসক্রিপশনে কোনো ডিগ্রির উল্লেখ না থাকায় সন্দেহ দানা বাঁধে রোগীর আত্মীয়- পরিজনদের মধ্যে। তাকে জিজ্ঞেস করায় তার কথায় অসঙ্গতি পেলে চিকিৎসককে আটকে বিক্ষোভ দেখায় রোগীর আত্মীয়-পরিজনরা। শীতলকুচি থানায় খবর দেওয়া হলে শীতলকুচি থানার পুলিশ এসে ওই চিকিৎসককে থানায় নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে নগর সিঙ্গিমারি এলাকার আলতাফ হোসেন জানান, প্রচার শুনে তিনি শাশুড়ির হাঁটুর ব্যথার সমস্যা নিয়ে ওই চিকিৎসকের কাছে আসেন। রোগী দেখার পর চিকিৎসক জানান নার্ভের সমস্যা রয়েছে। এরপর প্রেসক্রিপশনে কিছু ঔষধ ও ইনজেকশনের নাম লেখেন। কিন্তু প্রেসক্রিপশনটি তে তার কোনো ডিগ্রি উল্লেখ নেই এতে সন্দেহ হয়েছিল । তিনি আরও জানান অমিত কুমার বল লেখা রয়েছে তার চেম্বারের হোর্ডিং এ কিন্তু তার আধার কার্ডে নাম অনিতেশ বল এভাবেই প্রতারণা করে আসছিলেন তিনি।

এ বিষয়ে শীতলকুচি থানার ওসি মৃত্যুঞ্জয় চক্রবর্তী জানান, ওই ভুয়ো ডাক্তারকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।
এ বিষয়ে মাথাভাঙ্গা মহাকুমার পুলিশ আধিকারিক সুরজিৎ মন্ডল বলেন, ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে ওঠা মৌখিক সমস্ত অভিযোগ খতিয়ে দেখছে পুলিশ।
পাশাপাশি মাথাভাঙ্গার মহকুমা শাসক অচিন্ত্য কুমার হাজরা বলেন, এই ঘটনার কথা সংবাদমাধ্যমের কাছে শুনেছি। পুলিশ নিশ্চয়ই গোটা ঘটনার তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।


খবরটি প্রয়োজনীয় মনে হলে শেয়ার করুন

নিউজফ্রন্ট বাংলার এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 95936 66485

Leave a Reply

Your email address will not be published.