কালী পুজো উপলক্ষে জবার চাহিদা মেটানোর জন্য তৎপর ফুল চাষিরা

এনএফবি, পূর্ব মেদিনীপুরঃ

আর মাত্র হাতে গোনা কয়েকটা দিন বাকি কালীপুজো। কালীপুজোর মূল পূজার উপকরণ তা হলো জবা ফুল। আর জবা ফুল ছাড়া পুজো যেন অসম্পূর্ণ থাকে, এমনটাই মনে করেন উদ্যোক্তারা। কালী পুজোতে জবা ফুলের চাহিদা থাকে ব্যাপক। সেই কারণে জবাফুল চাষিরা এই কালীপুজোর দিনটির জন্য অপেক্ষা করে থাকেন। সারাবছর ফুলের তেমন দাম থাকে না। বছরের বেশ কয়েকটি দিন ফুলের দাম পেয়ে থাকেন জবা ফুল চাষিরা। তার মধ্যে অন্যতম হলো কালীপুজো।

ঠিক সেই কারণেই জবা ফুল চাষীরা আগে থেকে প্রস্তুতি নেন এই ফুল চাষের জন্য।কারণ কয়েকটি বিশেষ দিন ছাড়া জবার দাম পেয়ে থাকে গড়ে ৪ থেকে ১০ টাকা পর্যন্ত। তবে কালী পুজোর সময় প্রতি ১০০ পিস জবা ফুলের দাম পেয়ে থাকেন ৮০ থেকে ১০০ বা তার থেকেও বেশি। ঠিক এই কারনে সাত আট দিন আগে থেকেই জবা ফুল চাষীরা হিমঘরে বা কোল্ড স্টোরেজে ফুল সঞ্চয় করতে থাকেন কালী পুজোর বাজার ধরবার উদ্দেশ্যে।

জেলার কোলাঘাট-সহ মাতঙ্গিনী ব্লকে জবা ফুলের চাষ ব্যপক হয়ে থাকে। বিশেষ করে কোলাঘাটের খাড়িশা, পুলশিটা, নোনাচক, জশাড়, কুখাবাড়-সহ একাধিক গ্রাম গুলিতে অগনিত জবা চাষি রয়েছেন। তারাও অন্যান্য চাষির মতো লাভের আশায় বুক বেঁধেছেন। খাড়িশা গ্রামের এক চাষির বক্তব্য, এই বছর জবা চাষের আবহাওয়া ভালো রয়েছে। ফলনও ব্যপক হচ্ছে। আর কালীপুজোকে লক্ষ্য রেখে স্থানীয় মেছোগ্রামে হিমঘরে তাদের উৎপাদিত জবা ফুলের কুঁড়ি উপযুক্ত প্যাকেট করে সঞ্চয় শুরু করেছেন। মূল লক্ষ্য একটাই কালী পুজোর বাজার ধরা। তবে এই বছর কালী পুজোয় জবার ফুলের বাজার ভালো যাবে, সেই আশা রাখছেন এলাকার ফুল চাষীরা।

নিউজ ফ্রন্ট বাংলার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন টি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।