দক্ষিণ আফ্রিকার চোকার্স তকমা নিয়েই খোঁচা সচিনের

অঞ্জন চ্যাটার্জী, এনএফবিঃ

টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এবার অন্যতম ফেভারিট ছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। বিশ্বকাপে যাত্রাটা শুরুও করেছিল তারা সেভাবেই। কিন্তু রবিবার সকালে সমস্ত হিসাব নিকাশ বদলে গিয়েছে। যে দক্ষিণ আফ্রিকার টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে পৌঁছনোটা ছিল শুধু সময়ের অপেক্ষা, তারাই এদিন বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গিয়েছে। নেদারল্যান্ডসের কাছেই হেরে গিয়েছে প্রোটিয়া শিবির। আর তাররপর থেকেই ফের সেই চোকার্স শব্দটা ঘোরাফেরা করছে প্রোটিয়া শিবিরের চারপাশে।

সরাসরি না বললেও এবার সচিন তেন্ডুলকরের মুখেও দক্ষিণ আফ্রিকা সম্বন্ধে সেই চোকার্স তকমা। দক্ষিণ আফ্রিকার পয়েন্ট ছিল ৫। নেদারল্যান্ডসের বিরুদ্ধে জিততে পারলেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল নিশ্চিত ছিল প্রোটিয়াদের। ধারেভারে তারা যে নেদারল্যান্ডসের থেকে এগিয়ে ছিল সেটাও বলার অপেক্ষা রাখে না। কিন্ত ম্যাচ শুরু হতেই যেন বদলে গিয়েছিল গোটা চিত্রটা।

চিরাচরিত সেই চোকার্স তকমাটাই ফের যেন এদিন ফিরে এসেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা শিবিরে। আর সেজন্যই তাদের ম্যাচ শেষে সরাসরি না বললেও, প্রোটিয়াদের ফের চোকার্স বলেই খানিকটা খোঁচা দিলেন সচিন তেন্ডুলকর। যদিও গোটা ক্রিকেট বিশ্বও এটাই বলছে এখন। এরপরই যেন সচিন তেন্ডুলকরের সেই টুইট। সরাসরি না বললেও যেখানে দক্ষিণ আফ্রিকাকেই ফের একবার চোকার্স বলে খোঁচা দিলেন তিনি।

সচিন তেন্ডুলকর টুইটারে লিখেছেন, এক বন্ধুর সঙ্গে ব্রেকফাস্ট করতে গিয়েছিলাম। সেখানেই তাঁকে বলেছিলাম যে ডাচরা যাবে। সেটা শোনার পরই তিনি চোক করে গিয়েছিলেন।

বরাবরই ক্রিকেট বিশ্বে দক্ষিণ আফ্রিকার গায়ে রয়েছে চোকার্সের তকমা। এদিন আবারও একবার সেই কথাটাই যেন সত্যি হল। ফের একবার বিরাট বিপর্যয়ের সাক্ষী থাকল দক্ষিণ আফ্রিকা। নেদারল্যান্ডসের বিরুদ্ধে ১৪৫ রানে শেষ হয়ে গিয়েছে এদিন প্রোটিয়া বাহিনী। সেটা দেখার পর থেকেই তাদের নিয়ে গুঞ্জন তুঙ্গে। দক্ষিণ আফ্রিকার এই হারের সুযোগ নিয়ে এবার সেমিফাইনালে পৌঁছে গেল পাকিস্তান।

নিউজ ফ্রন্ট বাংলার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন টি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।