কলকাতা লিগে এরিয়ানকেও হারাতে ব্যর্থ লাল হলুদ ব্রিগেড

স্পোর্টস ডেস্ক, এনএফবিঃ

সেই একই ছবি পয়েন্ট নষ্ট করার খেলা। সে আইএসএল হোক বা কলকাতা লিগ ইস্টবেঙ্গল যেন জিততেই ভুলে গেছে। কলকাতা লিগের দল এরিয়ানকেও হারাতে ব্যর্থ শতবর্ষ প্রাচীন ইস্টবেঙ্গল।

কলকাতা লিগে সুপার সিক্সে শারদীয়ার আগে খিদিরপুরের বিরুদ্ধে পয়েন্ট নষ্ট করার পরে শনিবাসরীয় দুপুরে নৈহাটীতে রাজদীপ নন্দীর এরিয়ানের বিরুদ্ধে ১-১ গোলে ড্র করল লাল হলুদ ব্রিগেড। আইএসএলের ৮ জন প্লেয়ারকে দলে নিয়েও শেষরক্ষা হলো না।

গতমাসে এই ইস্টবেঙ্গল এরিয়ান ম্যাচটি বৃষ্টির জন্য স্থগিত হয়ে যায়। সেই ম্যাচটিই নৈহাটীতেই আবার আয়োজন করল আইএফএ। ম্যাচের শুরু থেকেই বল শুধু মাঝমাঠেই ঘোরাফেরা করে। ইস্টবেঙ্গল ফুটবলাররা কোনো গোলের সুযোগই তৈরি করতে পারেনি। ম্যাচের ৪ মিনিটে বলের সুযোগ পেলেও ফিনিশ করতে পারেননি।

এরিয়ান গোলরক্ষক লাল্টু মন্ডল কিছুটা বেরিয়ে আসেন নিজের বক্স থেকে হালকা আঘাতও লাগে তার।১৯ মিনিটে এরিয়ান একবার গোলের সুযোগ পেয়েছিল কিন্তু সম্ভব হয়নি গোলকরা। ২২ মিনিটে অমরজিত সিংয়ের ফ্রি কিকে প্রীতম কুমার সিং হেড করলেও লাল হলুদের গোলের ভাগ্যের চাকা ঘোরেনি। ৩২ মিনিটে জেসিন টিকে এরিয়ান বক্সে ঢুকে মবাশির রহমানকেপাস দেন কিন্তু তিনি বল ক্লিয়ার করতে ব্যর্থ হন। প্রথমার্ধের শেষ সময়ে ৪২ মিনিটে হাওকিপের অসাধারণ পাসে গোল করেন জেসিন টিকে। দ্বিতীয়ার্ধে হাওকিপের জায়গায় মহিতোষ রায়কে নামায় ইস্টবেঙ্গল। খেলাও প্রথমার্ধের থেকে ভালো হয়। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে ইস্টবেঙ্গলের মিস পাসের সুযোগ নিয়ে সুন্দর টাচে এরিয়ানের অমরনাথ বাস্কে গোল করে যায়।

গোল করে উচ্ছ্বাসে শ্রীরামপুরের অমরনাথ জার্সি খুলে দেন। সেই কারণে তাকে হলুদ কার্ড দেখান রেফারি। গোল খেয়ে গিয়ে গোলের জন্য মরিয়া লাগে লাল হলুদ ব্রিগেডকে। এরপর জেসিন টিকে ৫৫ মিনিটে এরিয়ান বক্সে ঢুকলেও মহিতোষ সেটা ক্লিয়ার করতে ব্যর্থ হন। খেলা শেষের একদম শেষ সময়ে ৮৮ মিনিটে এরিয়ান বক্সে গিয়ে যথেষ্ট সময় পেলেন ফাঁকা বক্সে ইস্টবেঙ্গলের সঞ্জীব ঘোষ। এরপর এরিয়ান সুযোগ পেয়েও গোল মিস করে। ইস্টবেঙ্গলের খেলায় যেন ক্রমাগত চাপ স্পষ্ট ছিল। এরপর আর সেভাবে গোলের মুখ খুলতে পারেনি লাল হলুদ ব্রিগেড।

শুভম ভৌমিককে নামান লাল হলুদ কোচ বিনো জর্জ মবাশির রহমানের জায়গায়। তবে গোল আসেনি। ম্যাচ শেষ হয় ১-১ ব্যবধানে।নৈহাটীতে হতাশ ইস্টবেঙ্গল সমর্থকেরা। কলকাতা লিগে কোচিং করাচ্ছেন দলের সহকারী কোচ বিনো জর্জ। তবে বসে নেই আইএসএলের কোচ স্টিফেন কনস্টানটাইন। এদিন নিজের সহকারীদের নিয়ে প্রেস বক্সে বসে নিজের দলের খেলা দেখলেন। স্বাভাবিকভাবেই হতাশ তিনি।

অন্যদিকে পুজোর পরে ময়দান বন্ধ থাকায় সেভাবে অনুশীলনের সুযোগ পায়নি এরিয়ান। সেই কারণে বেশ খুশি তাঁদের কোচ রাজদীপ নন্দী। রবিবার নৈহাটীতেই কলকাতা লিগের ম্যাচে নামবে মহামেডান ও ভবানীপুর।

নিউজ ফ্রন্ট বাংলার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন টি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।