উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থায় সাধারণ কর্মীদের পুরো বেতন না মেটানোয় আন্দোলনে শ্রমিকরা

এনএফবি, কোচবিহারঃ

সম্পূর্ণ বেতন না মেলায় উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার সদর দফতর কোচবিহার সাগরদিঘী চত্বরে থাকা পরিবহন দফতরে গিয়ে বিক্ষোভ দেখাল সংস্থার সিটু অনুমোদিত শ্রমিক সংগঠন।

জানাগেছে ,তাঁদের অভিযোগ, সংস্থার সাধারণ কর্মচারীরা আগস্ট মাসের বেতনের মাত্র ৭৫ শতাংশ পেয়েছে। বাকি ২৫ শতাংশ আজ পর্যন্ত মেটানো হয়নি। অথচ যারা দফতরে বসে কাজ করেন সেই সব আধিকারিকদের বেতন পুরোটাই দেওয়া হয়েছে। ১০ আগস্টের মধ্যে সাধারণ কর্মচারীদের সম্পূর্ণ বেতন মিটিয়ে দেওয়া না হলে আরও বৃহত্তর আন্দোলনে নামার হুমকি দিয়েছে উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার শ্রমিক কর্মচারী সংগঠন।
পাশাপাশি তাঁদের এই আন্দোলন রাজ্য জুড়ে থাকা সংস্থার সমস্ত ডিপোতে করা হবে বলেও এদিন হুমকি দিয়েছেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সম্পাদক মণ্ডলীর সদস্য সমীর কুমার দে। তিনি বলেন, “সাধারণ কর্মচারী, যাদের উপর নির্ভর করে এই সংস্থা চলে তাঁদের সম্পূর্ণ বেতন মেটানো হয়নি। এমাসের মাত্র ৭৫ শতাংশ বেতন হয়েছে। অন্যদিকে আধিকারিকদের বেতন পুরোটাই হয়েছে। এই বৈষম্যের বিরুদ্ধে আমাদের আন্দোলন চলবে। ১০ আগস্টের মধ্যে পুরো বেতন দেওয়া না হলে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। সমস্ত ডিপোতেই এই আন্দোলন কর্মসূচী চলবে। পাশাপাশি উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থাকে বেসরকারি করার যে চেষ্টা শুরু হয়েছে, তার বিরুদ্ধেও আমাদের আন্দোলন অব্যাহত থাকবে।”

নিজস্ব চিত্র

বাম আমলের শেষ দিকে উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার বেতন অনিয়মিত হয়ে পরে। ওই সময় শ্রমিক সংগঠন গুলো ব্যাপক আন্দোলন গড়ে তুলেছিল। এরপর ২০১১ সালে রাজ্যে ক্ষমতা পরিবর্তন হওয়ার পর বেতন নিয়মিত হতে শুরু করে। এতদিন ধরে নতুন করে আর বেতন সমস্যা দেখা যায় নি। শুধু তাই নয়, সম্প্রতি একাধিক সাংবাদিক সম্মেলনে উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার চেয়ারম্যান পার্থ প্রতিম রায় সংস্থার আয় বৃদ্ধি পেয়েছে বলেও দাবি করে আসছিলেন। কিন্তু কি এমন হল যে আচমকা আগস্ট মাসে সাধারণ কর্মচারী বেতন সম্পূর্ণ মেটানো সম্ভব হল না, এনিয়েই কর্মীদের মধ্যে শুরু হয়েছে ব্যাপক আলোচনা।

নিউজ ফ্রন্ট বাংলার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন টি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.