মহিলাদের এশিয়ান কাপ ইউরো স্পোর্ট ইন্ডিয়ায়

অঞ্জন চ্যাটার্জী, এনএফবিঃ

এই বছর এএফসি উইমেন্স এশিয়ান কাপের টিভি সম্প্রচারের অধিকার অর্জন করল ডিসকভারি নেটওয়ার্কের সেরা স্পোর্টস ব্র্যান্ড ইউরোস্পোর্ট ইন্ডিয়া। ভারতে এই টুর্নামেন্টের পে টিভি ব্রডকাস্ট রাইট তারা পেল ফুটবল স্পোর্টস ডেভলপমেন্ট লিমিটেডের (এফএসডিএল) কাছ থেকে।

প্রসঙ্গত, চলতি আইএসএলের উদ্যোক্তা এফএসডিএলের কাছেই ২০২৪ পর্যন্ত এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশনের যাবতীয় টুর্নামেন্টের ভারতীয় উপমহাদেশের মিডিয়া সত্ত্ব রয়েছে। সেই অধিকারবলেই ইউরোস্পোর্টকে তারা এএফসি উইমেন্স এশিয়ান কাপের পে টিভি ব্রডকাস্ট রাইট দিয়েছে। আগামী ২০ জানুয়ারি থেকে ৬ ফেব্রুয়ারি এই টুর্নামেন্ট হবে ভারতেই।

মোট ১২টি দলকে নিয়ে ভারতের তিনটি ভেনুতে হবে এবারের মহিলাদের এশিয়ান কাপ। এই ১২টি দলকে তিনটি গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে। আয়োজক দেশ ভারত রয়েছে ‘এ’ গ্রুপে। তাদের সঙ্গে এই গ্রুপে রয়েছে চিন, চিনা তাইপে এবং ইরান।

রাউন্ড রবিন ফরম্যাটে টুর্নামেন্ট শুরু হবে। প্রতি দলকে গ্রুপের বাকি তিন দলের মুখোমুখি হতে হবে। তারপরে তারা কোয়ার্টার ফাইনালে খেলার যোগ্যতা অর্জন করবে। কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচগুলি হবে ৩০ জানুয়ারি। সেমিফাইনাল ৩ ফেব্রুয়ারি ও ফাইনাল ৬ ফেব্রুয়ারি। ২০২৩-এ মেয়েদের বিশ্বকাপে এশিয়া থেকে কারা প্রতিনিধিত্ব করবে, তা ঠিক হবে এই টুর্নামেন্টেই।

ইউরোস্পোর্ট নেদারল্যান্ডসের এরেদিভিসি ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মেজর লিগ সকারের মতো বিশ্ববিখ্যাত লিগের সরাসরি সম্প্রচার স্থানীয় ভাবে দর্শকদের কাছে তুলে ধরে। ভারতীয় ফুটবলপ্রেমীদের ড্রইং রুমেও এখন ঢুকে পড়েছে তারা। একাধিক ফিফা ফ্রেন্ডলি, সাউথ এশিয়ান ফুটবল ফেডারেশন (সাফ) চ্যাম্পিয়নশিপ এবং প্রথম হিরো ফুটসাল ক্লাব চ্যাম্পিয়নশিপের ম্যাচগুলি ভারতীয় দর্শকেরা তাঁদের ঘরে বসে উপভোগ করেছেন ও প্রিয় দলকে সমর্থন দিয়েছেন।

ইউরো লিগ, মোটোজিপি, ফর্মুলা ২, অল এলিট রেসলিং, পিএফএল, পিজিএ টুর, এশিয়ান টুর, এটিপি কাপ এবং আরও নামী খেলার আসরের টাটকা অ্যাকশন টিভির পর্দায় তুলে ধরে ইউরোস্পোর্ট ইন্ডিয়া।

জানুয়ারির ২০ তারিখে চিন ও চিনা তাইপের মধ্যে ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে এই মহাদেশে মহিলা ফুটবলের এই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্ট। একই দিনে ভারত মুখোমুখি হবে ইরানের।

এএফসি উইমেন্স এশিয়ান কাপের গ্রুপ বিন্যাস এ রকমঃ

গ্রুপ এ – ভারত, চিন, চিনা তাইপে ও ইরান

গ্রুপ বি – অস্ট্রেলিয়া, তাইল্যান্ড, ফিলিপিন্স ও ইন্দোনেশিয়া

গ্রুপ সি – জাপান, কোরিয়া, ভিয়েতনাম ও মায়ানমার

Leave a Reply

Your email address will not be published.