বিধায়িকার বাড়ির কাছে ডাস্টবিনে শতাধিক ভোটার কার্ড! তদন্তের দাবি অখিলের, বিরোধীদের অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে

এনএফবি, পূর্ব মেদিনীপুরঃ

কাঁথির ডাস্টবিনে পড়ে শতাধিক ভোটার কার্ড। বিরোধীদের অভিযোগ এই ভোটার কার্ড গুলি ব্যবহার করে ছাপ্পা দিত শাসকদল। পুলিশি তদন্তের দাবি মন্ত্রী অখিল গিরির।

সোমবার সন্ধ্যা থেকে কাঁথি পুরসভা ৯ নং ওয়ার্ড়ে উওর কাঁথির বিধায়িকার বাড়ী সংলগ্ন ডাস্টবিনে পড়ে শতাধিক ব্যক্তি ও মহিলার ভোটার কার্ড। সেই সমস্ত ভোটার কার্ডে নাম ও ঠিকানা কাঁথি পুরসভার একাধিক ওয়ার্ডের ব্যক্তির। ৯ নং ওয়ার্ডের কিছু ব্যক্তি-সহ পার্শ্ববর্তী ওয়ার্ডের কিছু ব্যক্তিরও নাম রয়েছে সেখানে।

প্রথমে ওই ডাস্টবিনে এক সঙ্গে এত ভোটার কার্ড পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা। পরে খবর দেওয়া হয় এলাকার স্থানীয় কাউন্সিলর ও পুলিশকে। তারা এসে ডাস্টবিন থেকে ভোটার কার্ড গুলি নিজেদের হেফাজতে নেয়।

ঘটনাস্থল। নিজস্ব চিত্র

পঞ্চায়েত ভোটের আগে এক সঙ্গে এত ভোটার কার্ড কিভাবে ডাস্টবিনে এল? ঘটনা ঘিরে নতুন করে এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে কাঁথি পুরসভা জুড়ে। এই ঘটনা ঘিরে বিজেপির অভিযোগ তৃণমূল এই সমস্ত ভুয়া ভোটার কার্ড নিয়ে বিগত নির্বাচন গুলিতে ছাপ্পা মারতো, বর্তমানে কেন্দ্রীয় সরকার এবং র্নিবাচন কমিশন এই সমস্ত ঘটনাকে কঠোর হাতে দমন করার ফলে শাসক দলেরই কেউবা কারা এভাবে কার্ড গুলো ডাস্টবিনে ফেলে দিয়ে গেছে।

এ বিষয়ে শাসকদল অর্থাৎ তৃণমূলের মন্ত্রী অখিল গিরি বলেন ঘটনার খবর পেয়েছি এ বিষয়ে সঠিক তদন্ত করার জন্য। তবে এই কার্ড গুলো কার্ড কেনা সে বিষয়ে এখনও নিশ্চিত নয় কেউই। পঞ্চায়েত ভোটের আগে এভাবে একসাথে এত গুলো ভোটার কার্ড ডাস্টবিনে ফেলে দেওয়া নিয়ে শুরু হয়েছে নতুন করে রাজনৈতিক বিতর্ক।

নিউজ ফ্রন্ট বাংলার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশন টি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।